প্রবাস ডেস্কঃ ফ্রান্সে ডাকাতের সাথে বাংলাদেশী রেস্টুরেন্ট মালিক জুনায়েদ আহমেদের রেস্টুরেন্টে কর্মরত বাংলাদেশী কর্মিদের সংঘর্ষে এক ডাকাত গুরুতর আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে এবং রেস্টুরেন্টের বাংলাদেশী দুই কর্মিও আহত হয়েছেন।

প্রথমে মালিক পুলিশ হেফাজতে থাকলেও পরে মুক্ত হন।
ঘটনাটি ঘটেছে ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস থেকে ১২.৬ কিলোমিটার উওরপূর্বে Le Blanc-Mesnil এরিয়ার বাংলাদেশী জুনায়েদ আহমেদের মালিকানাধীন ইন্ডিয়ান রেস্টুরেন্টে। জুনায়েদের বাড়ি সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে।

গত বৃহস্পতিবার রাতে রেস্টুরেন্টে ডাকাত হানা দিলে কর্মচারিরা ডাকাতদের প্রতিহত করতে এগিয়ে যায়। এতে তিন ডাকাত আহত হয় এবং দুই ডাকাত দৌড়ে পালায় এবং এক ডাকাত গুরুতর আহত হয়। ডাকাতের আঘাতে রেস্টুরেন্টের দুই বাংলাদেশী কর্মি হালকা আহত হন। পরে ফ্রান্স পুলিশ এসে আহত ডাকাত Robert-Ballanger হাসপাতালে নিয়ে যায়। ডাকাতের মুখমন্ডল কেটে গুরুতর জখম হয় তাতে অপারেশন করা হয়। ডাকাতের অবস্থা আশংকাজনক বলে জানা যায়।

হাসপাতালে ডাকাত কে পুলিশের তত্বাবধানে রেখে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। রেস্টুরেন্ট কর্মিরাও চিকিৎসা নিয়েছেন। মালিক জুনায়েদ আহমেদ ইতিমধ্যে পুলিশের কাছে অভিযোগ দিয়েছেন। ফ্রান্স পুলিশ সিসিটিভি ফুটেজ দেখে ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত করছে। তবে ফ্রান্সের আইন অনুযায়ী যদি ডাকাত মারা যায় তাহলে রেস্টুরেন্ট মালিক কে বড় ধরনের জরিমানা গুণতে হতে পারে বলে জানা যায়।

সূত্রঃ মো : ইমাম হোসেন।